মাসিক সংরক্ষণাগার: March ২০১৭

ইসলামের দৃষ্টিতে স্বাধীনতা ও স্বার্বভৌমত্ব

মানুষ সত্তাগতভাবেই স্বাধীন। প্রতিটি মানুষ তার স্বাধীনতা নিয়েই এই পৃথিবীতে আসে। পৃথিবীর বুকে প্রতিটি মানুষের রয়েছে স্বাধীনতা ভোগ করার সমান অধিকার। আল্লাহ তাআলা মানুষকে এক সহজাত স্বাধীনচেতা সত্তা দিয়ে গঠন করেছেন, তাই মানবসত্তা একমাত্র মহান সৃষ্টিকর্তা ছাড়া অন্য মানুষের সামনে নতি স্বীকার করা বা অপরের অধীন হওয়া মেনে নিতে পারে না। আল্লাহ তাআলা ইরশাদ করেছেন

সান্নিধ্যের অনুভবে কুরআন তেলাওয়াত / ড. মুহাম্মদ ঈসা শাহেদী

কুরআন মজীদ আল্লাহর কালাম। আমরা আল্লাহকে দেখি নি, এই দুনিয়াতে আল্লাহকে দেখা সম্ভবও নয়; তবে আল্লাহ পবিত্র বাণী কুরআন মজীদ আমাদের মাঝে আছে। এর একেকটি আয়াত আল্লাহর নিদর্শন। এর সাহায্যে আমরা আল্লাহর পরিচয় পেতে পারি। নগণ্য বান্দা আল্লাহর সঙ্গে গড়ে তুলতে পারে গভীর বন্ধন। এতবড় কাজ কীভাবে সম্ভব তার বাস্তব দৃষ্টান্ত পাওয়া যায় আল্লাহর দু’জন

স্বাধীনতার উজ্জ্বল দৃশ্য / হাফেজ মাওলানা আবূ সালেহ

স্বাধীন, স্বাধীনতা ও স্বাধিকারের সংজ্ঞা বাংলা অভিধানে ‘স্বাধীন’ শব্দের অর্থ লেখা হয়েছে স্বাধীনগতি, সার্বভৌম, বাধাহীন, স্বচ্ছন্দ, মুক্ত, আজাদ, বিদেশী দ্বারা শাসিত নয় এমন। আর ‘স্বাধীনতা’র অর্থ বর্ণনা করা হয়েছে: স্বচ্ছন্দতা, বাধাহীনতা, আজাদী ইত্যাদি। (বাংলা একাডেমী ব্যবহারিক বাংলা অভিধান, পৃ; ১১৮৮, ঢাকা) এখানে স্বাধীনতা বা স্বাধীনের বিপরীত অর্থ লিখেও ‘স্বাধীন’ শব্দের অর্থ বোঝানোর চেষ্টা করা হয়েছে।

শিশুর অধিকারে রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম-এর উত্তম আদর্শ [১ম পর্ব] ড. মুফতী আবদুল মুকীত আযহারী

ইসলামে যে শিশু অধিকারের কথা উল্লেখ হয়েছে তার শুরুটা হয়েছে শিশু জন্মগ্রহণ করার আগ থেকে। ১ম অধিকার : শিশু জন্মের আগেই আদর্শ মা র্নিবাচন করা। ২য় অধিকার : জন্মের পরে একটি ভালো নাম নির্বাচন করা । ৩য় অধিকার : শিশুর জন্যে খুশি প্রকাশ করে আকিকা প্রদান করা। ৪র্থ অধিকার : শিশুর দুধপানের ব্যবস্থা করা। ৫ম

এতিম-অনাথ সংক্রান্ত জিজ্ঞাসা [ ২য় পর্ব] / মাওলানা মুজিবুর রহমান

অবশ্য কোন কোন হাদীসে কাজ করার শর্তে এতিমের সম্পদ হতে খাওয়া বা গ্রহণ বৈধ বলে প্রমাণিত আছে। মা‘মার, জুহরী আল-তামিস ইবনে মুহাম্মদ সূত্রে বর্ণনা করেছেন, এক ব্যক্তি হযরত ইবনে আব্বাস রা.-এর কাছে এসে বলল, আমার ক্রোড়ে (তত্ত্বাবধানে) কয়েকজন এতিম রয়েছে, তাদের ধন-সম্পদও আছে। অর্থাৎ, লোকটি সেই ধন-সম্পদ থেকে কিছু গ্রহণের অনুমতি চাচ্ছিল। তখন ইবনে আব্বাস

নারীর অধিকার : প্রসঙ্গ মোহর / মুফতী পিয়ার মাহমুদ

ইসলামের যে বিধানগুলো আল-কুরআনের বিভিন্ন আয়াতে বর্ণনা করা হয়েছে তার অন্যতম হলো স্ত্রীর মোহর। বিয়ের কারণে নারীর সতীত্ব রার প্রতি সম্মান প্রদর্শনের খাতিরে ইসলাম স্বামীর উপর যে আর্থিক যিম্মাদারী আরোপ করেছেন তারই নাম মোহর। কুরআন হাদীসে কোথাও একে ‘সিদাক’ শব্দে উল্লেখ করা হয়েছে, কোথাও অন্য শব্দে। বিবাহ বন্ধন, বিবাহ বিচ্ছেদ, ঈমানদার ব্যক্তি ও সমাজের বৈশিষ্ট্য

মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের প্রতি দরূদ পাঠের প্রয়োজনীয়তা / এইচ. এম. মুশফিকুর রহমান

সমস্ত প্রশংসা আল্লাহ তাআলার জন্য। আমরা তার কাছে সাহায্য চাই এবং তারই নিকট মা প্রার্থনা করি। আল্লাহ যাকে হিদায়েত দেন, তাকে গোমরাহ করার কেউ নেই। দরূদ ও সালাম মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের উপর। মুমিন হৃদয় আলোড়িত হয়, শিহরিত হয়, মনে আনন্দের বীনা বাজতে থাকে যখন প্রিয় নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের নাম উচ্চারিত হয়, তাঁর জীবন-চরিত

সোনালি ফায়সালা / সৈয়দা সুফিয়া খাতুন

আসামী গ্রেফতারের এক আজব কৌশল এক ব্যক্তি সফরে বের হওয়ার সময় তার এক মূল্যবান হার এক আতর বিক্রেতার কাছে জামানত হিসেবে রাখল। যখন সফর থেকে ফিরে আতর বিক্রেতার কাছে তার হার চাইল তখন সে অস্বীকার করল। সেই ব্যক্তি আতর বিক্রেতার বিরুদ্ধে আব্বাসী খলীফার দরবারে অভিযোগ করল। খলীফা খুবই দূরদর্শী ও বিচক্ষণ ছিলেন। তিনি বাদীকে বললেন,

ভিক্ষাবৃত্তি প্রতিরোধে ইসলাম / মমিনুল ইসলাম মোল্লা

অল্পে তুষ্টি, সহনশীলতা, মিতব্যয়িতা, বিনা প্রয়োজনে কারো কাছে কিছু না চাওয়ার জন্য শরিয়তে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। আবু হুরাইরা (রা.) থেকে বর্ণিত, নবী করীম (সা.) বলেন, ‘অঢেল সম্পদ থাকলেই ঐশ্বর্যশালী হওয়া যায় না, বরং মনের ঐশ্বর্যই প্রকৃত ঐশ্বর্য।’ (সহীহ বুখারী ও মুসলিম) সুতরাং সম্পদের প্রতি অতিরিক্ত লোভ করা যাবে না। সাহাবীগণ ক্ষুধার তাড়নায় নামাজের সময় দাঁড়ানো

প্রেমের নামাজ তাহাজ্জুদ / মাহবুবুর রহমান নোমানি

আল্লাহর সঙ্গে বান্দার সম্পর্ক তৈরির প্রধান মাধ্যম নামাজ। নামাজের মাধ্যমে মহামহিম স্রষ্টার সঙ্গে বান্দার প্রেমালাপ হয় । হাদিসে বর্ণিত হয়েছে, ‘সিজদা অবস্থায় বান্দা আল্লাহ তাআলার যত কাছাকাছি চলে যায়, অন্য সময় তত কাছাকাছি যেতে পারে না।’ পবিত্র কুরআনে স্বয়ং আল্লাহ বলেছেন, ‘সিজদা করো আর আমার নৈকট্য অর্জন করো।’ (সুরা ইকরা : ১৯) মহান আল্লাহর এ

এটাও চুরি! এটাও ছিনতাই!! / মুহাম্মদ মুহিউদ্দীন কাসেমী

চুরি ও ছিনতাই একটি নিকৃষ্ট অপরাধ। পৃথিবীর সকল সমাজ ও ধর্মেই তা ঘৃণিত ও নিন্দিত একটি কাজ। আমরা চুরি বলতে বুঝি কারো অগোচরে তার সম্পদ নিয়ে যাওয়া। আর ছিনতাই মানে জোরজবরদস্তি করে বা শক্তি প্রয়োগ করে ও ভয় দেখিয়ে কারো সামনেই তার সম্পদ হরণ করা। শরিয়তের দৃষ্টিকোণ থেকে চুরির নির্দিষ্ট সংজ্ঞা ও শর্ত রয়েছে। তা

সন্তানের প্রতি সদয় ও অনুগ্রহশীল হোন / মূল : আলী তানতাভী /ভাষান্তর : মুহাম্মদ মিনহাজ উদ্দিন

[প্রবন্ধটি মূলত একটি ভাষণ, যা দামেশ্ক বেতারকেন্দ্র প্রায় ত্রিশ বছর পূর্বে সম্প্রচারিত হয়েছিলো। আমার পূর্বপ্রকাশিত প্রবন্ধগুলো আজ উল্টিয়ে-পাল্টিয়ে দেখছিলাম, হঠাৎ এ প্রবন্ধটির উপর দৃষ্টি পড়ে। লক্ষ্য করে দেখলাম, এত বছর পরও যেন প্রবন্ধটির বিষয়বস্তু সেই আগের মতো তার নতুনত্ব ও স্বকীয়তা ধরে রেখেছে। হয়তো পাঠক এর থেকে উপকৃত হবেন। সে কামনায় প্রবন্ধটি পুনরায় প্রকাশ করা

আলেম সমাজের অহংকার অধ্যক্ষ / মাওলানা ফখর উদ্দীন রহ. মোহাম্মদ ইমাদ উদ্দীন

পৃথিবীতে যুগে যুগে এমন আলেম-উলামা ও আউলিয়া কেরাম জন্ম নিয়েছেন, যাঁদের জ্ঞানভা-ার ও কর্মকা- মুসলমানদেরকে সমৃদ্ধ ও মহিমান্বিত করেছে। ইতিহাসে তাঁদের নাম স্বর্ণাক্ষরে লেখা আছে, পৃথিবী থেকে চলে গেলেও এখনো তাঁরা জীবিত। সেসব স্মরণীয় ব্যক্তিদের অন্যতম প্রাণপুরুষ হলেন আলেমসমাজের মধ্যমণি ও বহুমুখী প্রতিভাবান ব্যক্তিত্ব মাওলানা মুহাম্মদ ফখর উদ্দীন রহ.। তিনি ১৯৪৯ সালের ১ মার্চ চট্টগ্রাম

মুমিন এক গর্তে দুইবার পতিত হয় না / মুহাম্মদ শরীফুল আলম

মিথ্যা, প্রবঞ্চনা আর ধোঁকাবাজি আমাদের সমাজে আজ মহামারী আকার ধারণ করেছে। ফলে আমাদের দৈনন্দিন জীবনযাপন হয়ে উঠেছে চরম অস্বস্তিকর। বেশির ভাগ ক্ষেত্রে সহজ-সরল অশিক্ষিত মানুষগুলোই হচ্ছে এ ধোঁকাবাজির নির্মম শিকার। বর্তমানে মোইলফোনের মাধ্যমে ধোঁকাবাজিটা বেশি হচ্ছে। ধোঁকাবাজরা কখনো কখনো নিজেদের অসহায়ত্ব প্রকাশ করছে। আর সহজ-সরল মানুষের সরলতাকে পুঁজি করে ধোঁকা দিচ্ছে। আবার কখনো লোভ দেখিয়ে

বসন্তের প্রকৃতি / নাজিরুল ইসলাম নকীব

দখিনা দুয়ার খুলে দিয়েছে, ফাগুনের হাওয়া বয়ছে চারদিকে। শীতকালের অন্ত ঘটিয়ে বসন্তের আবির্ভাব হলো, সুজলা, সুফলা, শস্যশ্যামলা আমাদের এই সোনার বাংলাদেশে। এদেশের বারটি মাসে চলে ষড়ঋতুর বিচিত্র লীলা। ছয় ঋতুর মধ্যে বসন্তকাল তার নিজের বৈশিষ্ট্যে বিশেষ স্থানের অধিকারী। বসন্তকালকে বলা হয় ‘ঋতুরাজ’। ছয় ঋতুর মধ্যে সবচেয়ে সুন্দর সবুজ প্রকৃতিতে সাজে বসন্তকাল। চারদিকে সবুজ সৌন্দর্যের অপরূপ

সেলফির মরণফাঁদে / আব্দুল হান্নান জুলফিকার

স্মার্ট ফোনের আশীর্বাদে সেলফি বা নিজের ছবি তুলে সঙ্গে সঙ্গে তা সামাজিক মাধ্যমে দেয়ার প্রতিযোগিতা ইদানীং লণীয় ভাবে বেড়েছে। এটা এখন রীতিমত একটা ফ্যাশন হয়ে দাঁড়িয়েছ। কার আগে কে সেলফি তুলে তা ফেসবুকসহ অন্যান্য মাধ্যমে পোস্ট করবে। এই প্রতিযোগিতা আমাদের, বিশেষ করে উঠতি বয়সী ও তরুণদের পেয়ে বসেছে। বেড়াতে যাওয়া থেকে শুরু করে ঘরে-বাইরে সবখানে

সময়ের পদধূলি / ফাতেমা আক্তার সিক্তু

ছোটবেলায় স্বপ্ন দেখতাম অনেককিছু। এই হবো, সেই হবো। সবচেয়ে বড় আকাক্সক্ষা ছিলো বড় হবো। অন্তত আব্বু ও কাকুদের চেয়ে বড়। গ্রীষ্মের দুপুরে যখন পাড়ার ছেলেমেয়েরা দল বেঁধে গাছতলায় ঘোরাঘুরি করে, কারো গাছ থেকে ছোট ছোট কাঁচা আম পড়লে কে কার আগে নিতে পারে সেই আশায়, আমাকে তখন গোসল করে খেয়ে ঘুমাতে হয়। ঘুম না পেলে

কবিতাগুচ্ছ

পৃথিবী সৈয়দা সুফিয়া খাতুন পৃথিবীতে যত সুখ আছে মনে হয় দয়াময় সবটুকু সুখ দিয়েছেন আমায় পৃথিবীতে যত কষ্ট আছে মনে হয় দয়াময় সবটুকু কষ্ট দিয়েছেন আমায় পৃথিবীতে যত অপরূপ সৃষ্টি আছে মনে হয় সবটুকু আমার জন্য করেছেন সৃষ্টি আকাশ-বাতাস, রবি-শশি যা কিছু আছে মনে হয় আমার জন্য করেছেন সৃষ্টি এতো কিছু পেয়ে এতো কিছু দেখে

আমার অবহেলা ও কলমের অভিমান / মুহাম্মদ রাসেল রাবী

আজ শুক্রবার। সপ্তাহশেষে একটু নীরবতায় নিশ্বাস নেবার দিন আজ। আমার সঙ্গে আমার কলমটাও যাতে একটু প্রশান্তির নিঃশ্বাস ফেলতে পারে তাই বসলাম খাতা নিয়ে। দ্বিতীয় সাময়িক পরীার প্রস্তুতির জন্য প্রায় একমাস পর আজই কলমটা হাতে নিলাম। কিন্তু একি! দীর্ঘদিন পর সাাতে কারাগারের কয়েদির মত দেখাচ্ছে ওকে। যেন সবেমাত্র ছাড়া পাওয়া শক্তিহীন কঙ্কালসার দেহ সে। কী বলে

মসজিদই ছিল মুসলমানদের অফিস / জমির আল-হাফিজ

রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম নবুয়ত ঘোষণার পর দ্বীনের কাজে মেহনত শুরু করেছিলেন। এতে মুসলমানদের সংখ্যা বৃদ্ধি পেতে থাকে। হিজরতের পর মদীনায় মসজিদে নববী নির্মাণ ছিল প্রথম গুরুত্বপূর্ণ কাজ। সকল মুসলমানকে এক জায়গায় একত্র করার উদ্দেশ্যে এ মসজিদ নির্মাণ করা হয়। সেখানে রুহানি প্রয়োজন মেটানোর পাশাপাশি পার্থিব সমস্যা-সম্পর্কিত বিষয়েও আলোচনা করা হতো এবং সমাধানও প্রদান

দেওবন্দের এদারা / মোস্তফা কামাল গাজী

মসজিদে রশিদে ফজর পড়ে বাইরে এলাম। বসন্তের ঝকঝকে একটা সকাল। মৃদু বাতাসে একটু একটু শীত লাগছে। মসজিদের বেলে পাথরের বিশাল চত্বর। তার একপাশে ফুলের বাগান। নানা রঙের ফুল ফুটে আছে সেখানে। নাম না জানা চমৎকার কিছু হলুদ রঙের ফুল গাছের ডালে ঝুলছে। শিশিরজলে ভেজা ফুলগুলো বেশ লাগছে। তবে এতো ফুলের মাঝেও প্রজাপতি উড়ছে না কোথাও।


Hit Counter provided by Skylight